শার্লামেনের সাম্রাজ্য বিস্তার

শার্লামেনের সাম্রাজ্য বিস্তার প্রসঙ্গে দক্ষিণ ইতালি ও সিসিলির ক্ষেত্রে শার্লামেনের দুর্বল নীতি, শার্লামেনের রাজ্যের বিভাজন, শার্লামেনের বিখ্যাত রাজধানী, সাম্রাজ্য বিস্তারের বিভিন্ন দিক, লম্বার্ডদের বিরুদ্ধে শার্লামেনের ইতালি অভিযান, স্যাক্সনদের বিরুদ্ধে শার্লামেনের অভিযান, ব্যাভেরিয়ার বিরুদ্ধে শার্লামেনের অভিযান, স্লাভ, ডেন, আভারদের উপর শার্লামেনের আধিপত্য ও শার্লামেনের স্পেন অভিযান সম্পর্কে জানবো।

সম্রাট শার্লামেনের সাম্রাজ্য বিস্তার

ঐতিহাসিক ঘটনাশার্লামেনের সাম্রাজ্য বিস্তার
সম্রাটশার্লামেন
ইতালি অভিযান৭৭৩-৭৪ খ্রি
স্যাক্সনদের বিরুদ্ধে জয়৭৭৫ খ্রি
স্পেন দখল ৭৯৫ খ্রি
বোহেমিয়া দখল৮০৫-০৬ খ্রি
শার্লামেনের সাম্রাজ্য বিস্তার

ভূমিকা :- শার্লামেনের অধিকার করা অঞ্চলগুলি একটি বড় সাম্রাজ্যে পরিণত হয়েছিল। আংলো-স্যাক্সন এবং স্কান্ডিনেভিয়ানদের ছাড়া সমগ্র জার্মান জনগণ শার্লামেনের সাম্রাজ্যের অন্তর্ভুক্ত ছিল। জার্মান সাম্রাজ্য গ্রাস করার সাথে সাথে বহিরাগতরা যাতে আক্রমণ করতে না পারে তার ব্যবস্থাও করেছিলেন। কিন্তু শার্লামেনের রাজ্য বিস্তার নীতির সীমাবদ্ধতাকে কোনমতেই অস্বীকার করা যায় না।

দক্ষিণ ইতালি ও সিসিলির ক্ষেত্রে শার্লামেনের দুর্বল নীতি

  • (১) শার্লামেন দক্ষিণ ইতালি এবং সিসিলির ক্ষেত্রে দুর্বল নীতি নিয়েছিলেন বলে মনে করা হয়। শার্লামেন প্রথমে জার্মান ছিলেন, পরে ইতালিয় হয়েছিলেন। জার্মানি বিজয়ের ক্ষেত্রে তার স্বয়ংসম্পূর্ণতার নিদর্শন পাওয়া গিয়েছিল।
  • (২) শার্লামেন বহু যুদ্ধ করেছিলেন। যুদ্ধে ব্যস্ত থাকার জন্য তার অধিকারে থাকা অঞ্চলগুলিতে শাসনতান্ত্রিক সমস্যা দেখা দিয়েছিল। এছাড়া যুদ্ধের ফলে প্রচুর শক্তিক্ষয় ও অর্থক্ষয় হয়েছিল।
  • (৩) শার্লামেন জার্মান অঞ্চল অধিকার করাকেই বেশি গুরুত্ব দিয়েছিলেন। সেক্ষেত্রে দক্ষিণ ইতালি, সিসিলি, স্পেন কিছুটা কম গুরুত্ব পেয়েছিল। Hallam তাঁর “The Middle Ages” গ্রন্থে একই অভিমত ব্যক্ত করেছেন, ‘জার্মানির অন্ধকারাচ্ছন্ন বনাঞ্চল ইটালীর থেকে বেশি গুরুত্ব পেয়েছিল।’

শার্লামেনের রাজের বিভাজন

নবম শতকের শেষদিকে শার্লামেনের সাম্রাজ্য সাতটি রাজ্যে বিভক্ত হয়েছিল-

  • (i) পশ্চিম লোম্বার্ডির গুইজো রাজ্য,
  • (ii) পূর্ব লোম্বার্ডির বেরেনজার শাসিত রাজ্য,
  • (iii) ওডোর শাসনাধীনে পশ্চিম ফ্রাঙ্ক রাজ্য,
  • (iv) আরনুলফের শাসনাধীনে পূর্ব ফ্রাঙ্ক রাজ্য,
  • (v) রোমের নেতৃত্বাধীন নিম্ন বার্গাণ্ডি,
  • (vi) চার্লস দ্য সিম্পলের শাসনাধীন অ্যাকুইটেন অঞ্চল,
  • (vii) রুডলফের শাসনাধীন উত্তর বার্গাণ্ডি অঞ্চল।

শার্লামেনের বিখ্যাত রাজধানী

শার্লামেন তার সংগঠন ও সরকার পরিচালনার ক্ষেত্রে সেই যুগের থেকে অনেক এগিয়ে ছিলেন। তিনি কেবলমাত্র বিজেতা হিসাবেই নয় একজন সচেতন শাসনতান্ত্রিক ব্যক্তিত্ব হিসাবে বিবেচিত হয়েছিলেন। শার্লামেন যে সমস্ত অঞ্চল জয় করেছিলেন অথবা নিজের অধিকারে রেখেছিলেন সেখানে সুদৃঢ় এবং স্থিতিশীল শাসনব্যবস্থা গড়ে তুলেছিলেন। আখেন বা আই লা শ্যাপেল ছিল শার্লামেনের বিখ্যাত রাজধানী। এটি “নতুন রোম” সাম্রাজ্য হিসাবে পরিচিত ছিল।

সাম্রাজ্য বিস্তারের বিভিন্ন দিক

  • (১) Matthias Becher তাঁর “শার্লামেন” নামক গ্রন্থে শার্লামেন-এর সাম্রাজ্য বিস্তারের বিষয়টি ব্যাখ্যা করেছিলেন। শার্লামেন সাম্রাজ্য বিস্তারের লক্ষ্য নিয়ে বহু অঞ্চলে অভিযান পরিচালনা করেছিলেন। ইতালীয় অভিযানের ফলস্বরূপ তিনি লম্বার্ডি অধিকার করেছিলেন।
  • (২) ৭৭৩ খ্রিস্টাব্দে শার্লামেন এবং তার কাকা বার্ণাড আল্পস অতিক্রম করেছিলেন। লম্বার্ডদের অনুসরণ করেছিলেন তাদের উপর কর্তৃত্ব স্থাপনের জন্য। ৭৭৪ খ্রিস্টাব্দ পর্যন্ত এইভাবে অভিযান চলেছিল। শার্লামেন রোমে পোপ-এর সঙ্গে দেখা করতে চেয়েছিলেন।
  • (৩) শার্লামেনের পিতা পোপকে কিছু অঞ্চল দান করেছিলেন, যেমন – তাস্কানি, ইমিলিয়া, ভেনিস এবং কর্সিকা এই অঞ্চলগুলিতে শার্লামেন সাম্রাজ্য বিস্তার করেছিলেন। পোপ শার্লামেনকে “Patrician” অভিধা দিয়েছিলেন। শার্লামেন Pavia ফিরে যাওয়ার পর লম্বার্ডদের বিরুদ্ধে অভিযান পরিচালনা করেছিলেন।
  • (৪) শার্লামেন ইতালিতে সফল অভিযান করে লম্বার্ডদের সম্রাট হয়েছিলেন। ৭৮৭ খ্রিস্টাব্দে শার্লামেন Benevento-এর প্রতি মনোযোগী হয়েছিলেন। দক্ষিণ ইতালিতে শার্লামেনের সাম্রাজ্য বিস্তারের প্রক্রিয়া এইভাবে শুরু হয়েছিল।
  • (৫) শার্লামেন স্পেনেও তার অভিযান পরিচালনা করেছিলেন। ৭৭৮ খ্রিস্টাব্দে স্পেন অভিযানের সময় শার্লামেনকে নানান সমস্যার মধ্যে পড়তে হয়েছিল। Roncesvalles অঞ্চল তিনি অতিক্রম করেছিলেন। শার্লামেন Corsica এবং Sardinia অধিকার করেছিলেন।
  • (৬) ৭৯৯ খ্রিস্টাব্দে Balearic Islands অধিকার করেছিলেন শার্লামেন। শার্লামেন তার শাসনকালের বা সাম্রাজ্যের অধিকাংশ সময়ে যুদ্ধের মধ্য দিয়ে অতিবাহিত করেছিলেন। পূর্বদিকে অভিযানের ফলস্বরূপ তিনি স্যাক্সনদের বিরুদ্ধে যুদ্ধ করে Saxonia অধিকার করেছিলেন।
  • (৭) ৭৯০-এর দশকে শার্লেমান আভারদের বিরুদ্ধে অভিযান করেছিলেন। ৭৯৬ খ্রিস্টাব্দে আভারদের বিরুদ্ধে গুরুত্বপূর্ণ জয়লাভ করেছিলেন। শার্লামেন উত্তর Dalmatia, Slavonia এবং Pannonia-তে অধিকার স্থাপন করেছিলেন।

লম্বার্ডদের বিরুদ্ধে শার্লামেনের ইতালি অভিযান

  • (১) শার্লামেন লোম্বার্ডদের বিরুদ্ধে যুদ্ধ করেছিলেন। লোম্বার্ডদের রাজধানী ছিল Pavia, যা উত্তর ইটালিতে অবস্থিত ছিল। লোম্বার্ডরা বহু শহর দখল করেছিল যে শহরগুলিতে পোপতন্ত্রের কর্তৃত্ব বজায় ছিল।
  • (২) ইতালিতে শার্লামেনের সামরিক অভিযানের সময়কাল ছিল ৭৭৩-৭৭৪ খ্রিস্টাব্দ। Pope Hadrian I (৭৭২-৭৯৫ খ্রিস্টাব্দ) লোম্বার্ডদের হাত থেকে রক্ষা পাওয়ার জন্য ইতালিতে শার্লামেনকে আহ্বান জানিয়েছিলেন। ৭৭৩ খ্রিস্টাব্দে শার্লামেনের প্রথম বৃহৎ সামরিক অভিযান ইতালি থেকে শুরু হয়েছিল।
  • (৩) ৭৭৩ খ্রিস্টাব্দে তিনি আল্পস অতিক্রম করে Pavia দখল করেছিলেন। লোম্বার্ডদের সম্রাট Didierকে পরাজিত করে তিনি এই অঞ্চল দখল করেছিলেন ৭৭৪ খ্রিস্টাব্দে। লোম্বার্ডরা যে সমস্ত অঞ্চল দখল করেছিল তা শার্লামেন পোপকে ফিরিয়ে দিয়েছিলেন। শার্লামেন লোম্বার্ডদের পরাজিত করে লোম্বার্ড সম্রাট হিসাবে পরিচিতি পেয়েছিলেন ৭৭৪ খ্রিস্টাব্দের জুন মাস নাগাদ।
  • (৪) এছাড়াও শার্লামেন তাঁর শাসনব্যবস্থা প্রতিষ্ঠা করেছিলেন Venetia, Istria, Dalmatia এবং Corsica-তে। ৭৭৪ খ্রিস্টাব্দে রোমে Easter উৎসব পালনের সময়কালে শার্লামেন পোপকে Venetia, Istria প্রভৃতি অঞ্চল দান করতে চেয়েছিলেন। শার্লামেন পোপকে যেসব অঞ্চল দান করতে চেয়েছিলেন তার পূর্ণাঙ্গ বিবরণী “ভিটা হাড্রিয়ানি” দলিল নামে পরিচিত ছিল।
  • (৫) এছাড়া “Donation of Pepin” (৭৫৬ খ্রিস্টাব্দ) এর সূত্র ধরে বলা যায় Pepine পোপকে কিছু অঞ্চল দেবার প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন। শার্লামেন পোপের এই প্রতিশ্রুতিও রাখতে পারতেন। কিন্তু লোম্বার্ডদের সম্রাট ও Patricius-এর মর্যাদা পাওয়ার পর তিনি পোপের প্রতিশ্রুতি রাখেন নি।

স্যাক্সনদের বিরুদ্ধে শার্লামেনের অভিযান

  • (১) স্যাক্সনদের বিরুদ্ধে শার্লামেনের অভিযান ছিল বিশেষ গুরুত্বপূর্ণ। স্যাক্সনদের বিরুদ্ধে শার্লামেনের যে যুদ্ধ হয়েছিল তা ছিল ভয়াবহ। স্যাক্সনরা ছিল খ্রিস্টান-ধর্ম বিরোধী। শার্লামেন তিরিশ বছরের বেশি সময় ধরে স্যাক্সনদের বিরুদ্ধে যুদ্ধ করেছিলেন। এই সময়কাল ছিল ৭৭২ থেকে ৮০৪ খ্রিস্টাব্দ পর্যন্ত।
  • (২) জার্মানবাসী স্যাক্সনরা ছিল অসীম সাহসী ও কঠোর পরিশ্রমী। ৭৭৫ খ্রিস্টাব্দে Westphalia-তে স্যাক্সনদের বিরুদ্ধে শার্লামেন জয়লাভ করেছিলেন। স্যাক্সনরা কিন্তু সবকিছু মেনে নিতে পারে নি। শার্লামেনের বিরুদ্ধে তারা ক্রমাগত বিদ্রোহ করেছিল। স্যাক্সনদের জাতীয় বীর ছিল Witikind। শার্লামেন স্যাক্সনদের খ্রিস্টানধর্ম গ্রহণে প্ররোচনা দিয়েছিলেন। কিন্তু স্যাক্সনরা খ্রিস্টান ধর্মের বিরোধিতা করেছিল।
  • (৩) স্যাক্সন বিদ্রোহ তীব্র আকার ধারণ করেছিল ৭৯৩-৭৯৯ খ্রিস্টাব্দে। শার্লামেন বিশপের অধীনে বিভিন্ন প্রদেশ বা Bishoprics গড়ে তুলেছিলেন। এই অঞ্চলে Bishopric-এর সংখ্যা বৃদ্ধি পাচ্ছিল। শার্লামেন কঠোর শাসনের পরিবর্তে স্বাধীনতাপ্রিয় সাক্সনদের শান্তি শৃঙ্খলার মাধ্যমে ফ্রাঙ্ক শাসনব্যবস্থা গড়ে তুলেছিলেন।

ব্যাভেরিয়ার বিরুদ্ধে শার্লামেনের অভিযান

শার্লামেন ব্যাভেরিয়ার বিরুদ্ধেও তাঁর অভিযান পরিচালনা করেছিলেন। ব্যাভেরিয়া ছিল প্রধানত জার্মান অঞ্চল। ফ্রাঙ্কশক্তির বিরুদ্ধে ব্যাভেরিয়ার Duke Tassilo ৭৮৮ খ্রিস্টাব্দে বিদ্রোহ করেছিলেন। শার্লামেন এই ব্যাভেরিয়া অধিকার করে ফ্রাঙ্ক রাজত্বের অন্তর্ভুক্ত করেছিলেন। ব্যাভেরিয়ার Duke Tassilo আনুষ্ঠানিকভাবে শার্লামেনকে ঊর্ধ্বতন প্রভুরূপে স্বীকার করতে বাধ্য হয়েছিলেন।

স্লাভ, ডেন, আভারদের উপর শার্লামেনের আধিপত্য

শার্লামেন স্লাভদের বিরুদ্ধেও জয়লাভ করেছিলেন। এর মাধ্যমে স্লাভ, ডেন, আভারদের বিরোধিতার সমুচিত জবাব তিনি দিতে পেরেছিলেন। বোহেমিয়াও ৮০৫-৮০৬ খ্রিস্টাব্দে শার্লামেনের অধিকারে এসেছিল। ডেনরা শার্লামেনের আধিপত্যের বাধাস্বরূপ ছিল। ডেনিসদেরও তিনি পরাজিত করেছিলেন। জার্মানির দক্ষিণ পূর্ব অঞ্চলে অবস্থিত বা আধুনিক হাঙ্গেরিয় অঞ্চলে বসবাসকারি আভার উপজাতির উপরও তিনি আধিপত্য প্রতিষ্ঠা করেছিলেন।

শার্লামেনের স্পেন অভিযান

  • (১) শার্লামেনের সামরিক দক্ষতার অন্যতম উদাহরণ ছিল স্পেনের সঙ্গে যুদ্ধ। স্পেন স্যারাসেন বা মুসলিমদের অধিকারে ছিল। স্পেনের এই যুদ্ধ ছিল প্রথম ইসলামদের বিরুদ্ধে এক সক্রিয় প্রতিরোধ এবং যাকে ক্রুসেডের আদিরূপ বলা যেতে পারে। শার্লামেনের মুসলিমদের বিরুদ্ধে প্রথম অভিযান (৭৭৮ খ্রিস্টাব্দ) যদিও সফলতা অর্জন করে নি।
  • (২) কিন্তু তিনি বিশাল সামরিক বাহিনী নিয়ে পিরেনিজ পর্বত অতিক্রম করে স্পেন আক্রমণ করেছিলেন। শেষপর্যন্ত স্পেনের অধিকাংশ অঞ্চলে (৭৯৫ খ্রিস্টাব্দ) শার্লামেনের আধিপত্য প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল। শার্লামেনকে তাই আধুনিক স্পেনের প্রতিষ্ঠাতা হিসাবে গণ্য করা হয়।

উপসংহার :- ফ্রাঙ্কদের সেনানায়কদের মধ্যে গুরুত্বপূর্ণ ছিলেন Friuli-এর Eric। তিনি Croatia-এর ডাচিগুলি অধিকার করতে চেয়েছিলেন। Trsat-এর যুদ্ধে Eric নিহত হওয়ার ফলে ক্যারোলিঞ্জিয় সাম্রাজ্যে বড় আঘাত এসেছিল।

(FAQ) শার্লামেনের সাম্রাজ্য বিস্তার সম্পর্কে জিজ্ঞাস্য?

১. ইতালিতে শার্লামেনের সামরিক অভিযানের সময়কাল কত ছিল?

৭৭৩-৭৭৪ খ্রিস্টাব্দ।

২. স্যাক্সনদের বিরুদ্ধে শার্লামেনের অভিযানের সময়কাল কত ছিল?

৭৭২-৮০৪ খ্রিস্টাব্দ।

৩. বোহেমিয়া শার্লামেনের অধিকারে আসে কখন?

৮০৫-০৬ খ্রিস্টাব্দে।

৪. শার্লামেন স্পেনের অধিকাংশ অঞ্চল দখল করেন কখন?

৭৯৫ খ্রিস্টাব্দে।

অন্যান্য ঐতিহাসিক ঘটনাগুলি

Leave a Comment