কিংবদন্তি

কিংবদন্তি প্রসঙ্গে নৃবিজ্ঞানীদের মন্তব্য, উদ্ভব, বৈশিষ্ট্য, উদাহরণ , জনপ্রিয় কিংবদন্তি, গুরুত্ব ও কিংবদন্তি কাহিনীর সমালোচনা সম্পর্কে জানবো।

কিংবদন্তি

ঐতিহাসিক বিষয়কিংবদন্তি
কেন্দ্রীয় চরিত্রমানুষ
জনপ্রিয় কিংবদন্তিরবিন হুড
ভারতরামচন্দ্র, শ্রীকৃষ্ণ
গ্ৰিসহারকিউলিস, প্রমিথিউস
কিংবদন্তি

ভূমিকা :- মৌখিক ইতিহাসের একটি অন্যতম উপাদান হিসেবে কিংবদন্তির (Legends) কাহিনিকে গুরুত্ব দেওয়া হয়। পাশ্চাত্য জগতে প্রচলিত লেজেন্ড, আঞ্চলিক ঐতিহ্য, জনপ্রিয় অ্যান্টিকুইটিস নামের আঙ্গিককে বাংলায় কিংবদন্তি বলা হয়।

কিংবদন্তি

কিংবদন্তি কাহিনিগুলিতে যেসব ঘটনার বিবরণ দেওয়া হয় বা যেসব চরিত্রের উল্লেখ করা হয় অতীতে একসময় সেসব ঘটনা ঘটেছিল বা সেসব চরিত্র জীবন্ত ছিল বলে লোকসমাজ বিশ্বাস করে থাকে।

কিংবদন্তি সম্পর্কে নৃবিজ্ঞানীদের মন্তব্য

সাংস্কৃতিক নৃবিজ্ঞানীরা মনে করেন যে, অতীত কাল থেকে লোকসমাজে প্রচলিত কিংবদন্তি কাহিনিগুলিতে সামান্য পরিমাণে হলেও অতীতের বহু ঐতিহাসিক তথ্য ও সূত্র থাকে।

কিংবদন্তির উদ্ভব

অধিকাংশ ঐতিহাসিক মনে করেন যে, মানুষ সামাজিক বিবর্তনের অনেকটা পথ অতিক্রম করার পর কিংবদন্তি কাহিনির সৃষ্টি শুরু হয়েছে। পৌরাণিক কল্প-কাহিনি সৃষ্টি হওয়ার পরবর্তীকালে মানবসমাজে যখন কিছু কিছু ইতিহাসবোধ জেগে উঠতে শুরু করে তখনই কিংবদন্তির পথ চলা শুরু হয়।

কিংবদন্তির বৈশিষ্ট্য

প্রাচীন কিংবদন্তি বা লেজেন্ডের কাহিনিগুলির বিশেষ কিছু বৈশিষ্ট্য আছে । যেমন –

(১) বিষয়বস্তু

কিংবদন্তির বিষয়বস্তু বিভিন্ন ধরনের হতে পারে। ইতিহাস-নির্ভর কাহিনি, প্রেম-বিরহ সম্পর্কিত কাহিনি, আধ্যাত্মিক ঘটনা, পরি বা ভূত-প্রেতের কাহিনি, সন্ন্যাসী-ফকির-পীর-দরবেশের কাহিনি ইত্যাদির সঙ্গে যুক্ত ব্যক্তিদের ঘটনা কিংবদন্তির বিষয়বস্তু হয়ে থাকে।

(২) চরিত্রের অস্তিত্ব

কিংবদন্তির ঘটনাবলির সম্পূর্ণ ঐতিহাসিক সত্যতা সম্পর্কে সন্দেহ থাকলেও একথা সাধারণভাবে স্বীকার করে নেওয়া হয় যে, কিংবদন্তির চরিত্রগুলি অতীতকালে একসময় জীবিত ছিলেন। রামচন্দ্র, শ্রীকৃষ্ণ, হারকিউলিস, প্রমিথিউস প্রমুখ কিংবদন্তি চরিত্রের অস্তিত্ব সম্পর্কে ঐতিহাসিকগণ প্রায় নিশ্চিত। তাঁরা যে, সাধারণ মানুষের চেয়ে বেশি ক্ষমতাবান, সাহসী, মানবদরদী ছিলেন সেকথাও স্বীকার করতে বাধা নেই।

(৩) বিস্ময় ও কল্পনা

কিংবদন্তি হল ইতিহাসের অপক্ব ফসল। বিস্ময় ও কল্পনা কিংবদন্তির প্রেক্ষাপটে অত্যন্ত সক্রিয়। প্রাথমিক অবস্থায় কিংবদন্তিতে ঐতিহাসিক ঘটনার সূত্র নিহিত থাকলেও কিংবদন্তির ঘটনা পরবর্তীকালে পল্লবিত হতে হতে প্রকৃত ইতিহাসের বহু ঘটনা মুছে যায়। তাই কিংবদন্তি থেকে সঠিক ইতিহাস উদ্ধার করা খুবই জটিল।

(৪) অতিরঞ্জন

কিংবদন্তি ঘটনার বিবরণে সর্বদাই অতিরঞ্জন লক্ষ্য করা যায়। অতীতের কোনো ব্যক্তির বাস্তব জীবনের সঙ্গে বিভিন্ন অতি মানবীয়, অবিশ্বাস্য ও অতিরঞ্জিত ঘটনা যুক্ত হয়ে কিংবদন্তি রচিত হয়। তাই বিভিন্ন কিংবদন্তিতে ভিত্তিহীন বিভিন্ন ঘটনার অস্তিত্ব লক্ষ্য করা যায়।

কিংবদন্তির উদাহরণ

পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে অসংখ্য কিংবদন্তি চরিত্র ও ঘটনাবলি ছড়িয়ে রয়েছে। রামচন্দ্র, শ্রীকৃষ্ণ, হারকিউলিস, প্রমিথিউস প্রমুখ কিংবদন্তি চরিত্রের সঙ্গে বহু কল্প-কাহিনি মিশে থাকলেও বাস্তবে এসব চরিত্র যে জীবিত ছিলেন এবং তাঁদের জীবনে সংঘটিত কিছু কিছু ঘটনার যে বাস্তব অস্তিত্ব ছিল তা ঐতিহাসিকগণ স্বীকার করেছেন। কিংবদন্তির চরিত্রগুলির মধ্যে উল্লেখযোগ্য কিছু কিংবদন্তির উদাহরণ হল –

(১) রামচন্দ্র

প্রাচীন ভারতের মহাকাব্য রামায়ণে উল্লিখিত রামচন্দ্র একটি গুরুত্বপূর্ণ কিংবদন্তি চরিত্র। রামচন্দ্র সম্পর্কে প্রচলিত কিংবদন্তি ঘটনাগুলির মধ্যে অন্যতম হল রাজসিংহাসন ছেড়ে পত্নী সীতা ও ভ্রাতা লক্ষণকে সঙ্গে নিয়ে চোদ্দ বছরের জন্য বনবাসে যাত্রা, লঙ্কার রাবণের বিরুদ্ধে যুদ্ধজয় করে পত্নী সীতাকে উদ্ধার বনবাস থেকে ফিরে অযোধ্যার সিংহাসন লাভ প্রভৃতি।

(২) শ্রী কৃষ্ণ

মহাকাব্য মহাভারতে উল্লিখিত শ্রীকৃষ্ণ চরিত্রটিও অন্যতম একটি কিংবদন্তি চরিত্র। শ্রীকৃষ্ণ সম্পর্কে কিংবদন্তি ঘটনাগুলির মধ্যে অন্যতম হল কংসের কারাগারে শ্রীকৃষ্ণের জন্মলাভ, কংসকে হত্যা, অসংখ্য গোপিনীকে নিয়ে কৃষ্ণের লীলা, কুরুক্ষেত্রের যুদ্ধে অর্জুনের রথের সারথি হিসেবে কৃষ্ণের ভূমিকা, যুদ্ধক্ষেত্রে শ্রীকৃষ্ণ কর্তৃক অর্জুনকে ভগবৎ গীতার শ্লোক শোনানো প্রভৃতি।

(৩) হারকিউলিস

প্রাচীন গ্রিসের অন্যতম কিংবদন্তি চরিত্র হলেন হারকিউলিস। হারকিউলিস ছিলেন উত্তর আফ্রিকার একজন শক্তিশালী যোদ্ধা ও সুদক্ষ সেনাপতি। হারকিউলিস সম্পর্কে কিংবদন্তি প্রচলিত আছে যে, জিউসের ঘুমন্ত শিশুপুত্র হারকিউলিসকে হত্যা করার জন্য হেরা দুটি সাপ পাঠান। কিন্তু শিশু হারকিউলিস জেগে উঠে দুটি সাপকেই মেরে ফেলেন। যৌবনে হারকিউলিসের বহু অবিশ্বাস্য বীরত্বের কাহিনি প্রচলিত রয়েছে। তাঁর মৃত্যুর পর একসময় তাঁর বিস্তৃত জীবন বৃত্তান্ত মানুষ ভুলে যেতে থাকে। ক্রমে হারকিউলিসের জীবনের প্রকৃত ঘটনার পরিবর্তে তার নামের সঙ্গে বহু কাল্পনিক ঘটনা যুক্ত হয় এবং তাঁকে নিয়ে বীরপূজা শুরু হয়।

(৪) প্রমিথিউস

প্রমিথিউস হলেন প্রাচীন গ্রিসের অপর উল্লেখযোগ্য কিংবদন্তি চরিত্র। কথিত আছে যে, অন্যান্য জীবদের তুলনায় মানুষকে শ্রেষ্ঠতর করে তোলার জন্য প্রমিথিউস মানুষকে সোজা হয়ে হাঁটতে শেখালেন এবং অন্যান্য জীবের চেয়ে মানুষকে মহত্তর বলে ঘোষণা করলেন। তিনি স্বর্গে গিয়ে সূর্যের কাছ থেকে আগুন এনে মানুষকে উপহার দিলেন। এই উপহার দানে ক্ষুদ্ধ হয়ে গ্রিক দেবতা জিউস প্রমিথিউসকে পাহাড়ের সঙ্গে শেকল দিয়ে বেঁধে তাঁর ওপর বর্বর অত্যাচার চালান। প্রতিদিন একটি ইগল এসে প্রমিথিউসের কলিজা খেয়ে যেত এবং নতুন আর-একটি কলিজার জন্ম হত। এভাবে প্রমিথিউসকে জিউস শাস্তি দেন।

(৫) গোপাল ভাঁড়ের কাহিনি

বাংলায় কৃষ্ণচন্দ্র রাজার রাজসভার হাস্যরসিক গোপাল ভাঁড় সম্পর্কে বিভিন্ন কাহিনি বাংলায় প্রচলিত রয়েছে। বিভিন্ন কাহিনিতে গোপাল ভাঁড়ের অসামান্য বুদ্ধিমত্তা, রাজা এবং রাজপরিবারের সভাসদদের বারংবার বুদ্ধিতে পরাজিত করা, হাস্যরস সৃষ্টি প্রভৃতি ফুটে উঠেছে। নদীয়া জেলার কৃষ্ণনগরের ঘূর্ণীর বাসিন্দা হিসেবে পরিচিত গোপাল ভাঁড়ের বিভিন্ন কাহিনিতে কিছু কিছু যথার্থ ঐতিহাসিক তথ্য পাওয়া যায়।

(৬) বিক্রমাদিত্য

কিংবদন্তির বিক্রমাদিত্য ছিলেন সুশাসক, দক্ষ বিচারক, সাহসী এবং বীর। তাঁর ‘নবরত্ন সভা’ ছিল। এই সভার অন্যতম ছিলেন কালিদাস। উজ্জয়িনী ও পাটলিপুত্র ছিল তাঁর রাজধানী। তিনি শকদের পরাজিত করে ‘শকারি’ উপাধি গ্রহণ করেন এবং ‘বিক্রম সম্বৎ’ প্রবর্তন করেন। অনেক ঐতিহাসিকই গুপ্তসম্রাট দ্বিতীয় চন্দ্রগুপ্তের সঙ্গে কিংবদন্তির বিক্রমাদিত্যের মিল খুঁজে পান।

(৭) অন্যান্য কিংবদন্তি চরিত্র

উপরোক্ত কিংবদন্তি চরিত্রগুলি ছাড়াও ভারতের কয়েকটি উল্লেখযোগ্য কিংবদন্তি চরিত্র হল রাজস্থানের রানা ও বীরাঙ্গনা, পূর্ববঙ্গের ভাওয়াল পরগণার ভাওয়াল রাজা, সাঁওতাল বিদ্রোহের শহীদ সিধু-কানু, মুণ্ডা বিদ্রোহের নায়ক বীরসা মুণ্ডা, বাংলার রঘু ডাকাত প্রমুখ।

সবচেয়ে জনপ্রিয় কিংবদন্তি চরিত্র

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য যে, পৃথিবীর সবচেয়ে জনপ্রিয় কিংবদন্তি নায়ক হলেন রবিন হুড। ব্রিটেনের শেরউড জঙ্গলের এই ডাকাত তাঁর মহানুভবতার জন্য দেশকালের গণ্ডি অতিক্রম করে আজও অত্যন্ত জনপ্রিয়।

কিংবদন্তির গুরুত্ব

মৌখিক ইতিহাসের উপাদান হিসেবে কিংবদন্তি কাহিনীর গুরুত্ব হল –

(১) ঐতিহাসিক তথ্যের সূত্র

বিভিন্ন কিংবদন্তির ওপর ভিত্তি করে বিভিন্ন ঐতিহাসিক ঘটনার সত্যতা নিরূপণ করা সম্ভব হয়। উদাহরণ হিসেবে পূর্ববঙ্গের সীতারকোট, বেহুলার বাসরঘর, অরুণধাপ ঢিবি, টুঙ্গির শহর ঢিবি প্রভৃতি স্থান সম্পর্কে বহু কিংবদন্তি প্রচলিত রয়েছে। এই কিংবদন্তিগুলির পরিপ্রেক্ষিতে সীতারকোট-এর উঁচু ঢিবিতে ১৯৬৮ এবং ১৯৭২ খ্রিস্টাব্দে এবং অন্যান্য স্থানগুলিতে ১৯৭৮ খ্রিস্টাব্দে পরীক্ষামূলকভাবে খননকার্য চালিয়ে প্রাচীন বৌদ্ধ বিহারের অস্তিত্ব পাওয়া গেছে।

(২) আনন্দদান

কিংবদন্তির ঘটনাগুলি অতীত কাল থেকে মানুষের মুখে মুখে প্রচারিত হয়ে লোকসমাজকে আনন্দ দিয়ে যাচ্ছে। কিংবদন্তিতে আনন্দদায়ক উপাদান আছে বলেই এগুলি বংশপরম্পরায় বর্তমানকালে এসে পৌঁছেছে। সেই সুত্রেই কিংবদন্তির মাধ্যমে বিভিন্ন ঐতিহাসিক সূত্র বর্তমানে আমরা জানতে পারি।

(৩) শিক্ষাদান

বর্তমানকালের মানুষকে কিংবদন্তির ঘটনাগুলি অতীতের নৈতিকতা, বীরত্ব প্রভৃতি বিষয়ে তথ্য সরবরাহ করে। এগুলি থেকে বর্তমানকালের মানুষ নৈতিকতার শিক্ষা লাভ করতে পারে এবং জীবনে চলার পথে সাবধানতা অবলম্বন করতে পারে।

(৪) ঐতিহাসিক ভিত্তি

কিংবদন্তির কাহিনি রূপকথার কাহিনির মতো সম্পূর্ণ কল্পনিক নয়। বহু ক্ষেত্রেই কিংবদন্তির কাহিনিগুলির একটি বাস্তব ভিত্তি আছে। বাংলার কিংবদন্তি চরিত্র রঘু ডাকাতের কালী পুজোর ভিত্তিতে আজও একটি কালী মন্দিরকে চিহ্নিত করা হয়। তাই কিংবদন্তি থেকে তুলনামূলকভাবে অনেক বেশি যথার্থ ঐতিহাসিক উপাদান পাওয়া সম্ভব।

কিংবদন্তি কাহিনীর সমালোচনা

কিংবদন্তির কাহিনিগুলির বিভিন্ন গুরুত্ব থাকলেও এর কিছু ত্রুটি-বিচ্যুতি রয়েছে। কিংবদন্তি গুলি প্রজন্মের পর প্রজন্ম ধরে মুখে মুখে প্রবাহিত হওয়ার ফলে ইতিহাসের অতীত ঘটনাবলির সঙ্গে বহু কাল্পনিক ঘটনা যুক্ত হয়ে পড়ে। ফলে প্রকৃত ইতিহাসকে খুঁজে পাওয়া যথেষ্ট কষ্টসাধ্য হয়ে পড়ে। উদাহরণ হিসেবে বলা যায়, অযোধ্যার রাজা রামচন্দ্র জীবিত অবস্থায় উদারতা, মানবিকতা, পরোপকার, শৌর্য-বীর্য, ত্যাগ-তিতিক্ষা, প্রজাদের ভালোবাসা লাভ প্রভৃতির ফলে কিংবদন্তিতে পরিণত হয়েছিলেন। পরবর্তীকালে তাঁর চরিত্রে নানা কাল্পনিক কাহিনি যুক্ত হয় এবং তিনি ভগবানে পরিণত হন।

উপসংহার :- কিংবদন্তির কাহিনিতে মানুষের কর্মকাণ্ড ও শক্তির ওপর বেশি গুরুত্ব আরোপ করা হয়। মানুষই হল কিংবদন্তি কাহিনির কেন্দ্রীয় চরিত্র। এক অসামান্য ব্যক্তি চরিত্র এবং তাঁর কার্যাবলিই কিংবদন্তির বিষয়বস্তু।

(FAQ) কিংবদন্তি হতে জিজ্ঞাস্য?

১. কিংবদন্তি কি?

পাশ্চাত্য জগতে প্রচলিত লেজেন্ড, আঞ্চলিক ঐতিহ্য, জনপ্রিয় অ্যান্টিকুইটিস নামের আঙ্গিককে বাংলায় কিংবদন্তি বলা হয়।

২. ভারতের একটি কিংবদন্তি চরিত্রের উদাহরণ দাও।

রামচন্দ্র, শ্রীকৃষ্ণ।

৩. গ্ৰিসের একটি কিংবদন্তি চরিত্রের নাম লেখ।

হারকিউলিস, প্রমিথিউস।

৪. সবচেয়ে জনপ্রিয় কিংবদন্তি চরিত্রের নাম কি?

রবিন হুড।

Leave a Comment